কর্ণফুলীতে শিশু আয়াত হত্যাকারীর বিচারের দাবি

0

চট্টগ্রামে পাঁচ বছর বয়সী শিশু আলিনা ইসলাম আয়াত অপহরণ ও হত্যার পর লাশ কেটে ছয় টুকরা করে সাগরে ভাসিয়ে দেওয়ার বীভৎস ঘটনায় হত্যাকারীর বিচারের দাবি জানিয়েছেন কর্ণফুলী উপজেলার স্থানীয় বাসিন্দারা।

শনিবার (২৬ নভেম্বর) দুপুরে উপজেলার মইজ্জ্যেরটেক এলাকায় কর্ণফুলী উপজেলা শুভ সংঘের ব্যানারে আয়োজিত এক মানববন্ধনে এ দাবি জানান তারা। মানববন্ধনে স্থানীয়, রাজনৈতিক ও সামাজিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দরা অংশ নেন।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, একটি শিশুকে অপহরণের পর নেক্কারজনকভাবে হত্যা করা হয়েছে। এটি আমাদের সমাজের জন্য লজ্জ্বার, আতঙ্কের। আজকে আয়াতের সাথে হয়েছে কালকে অন্য শিশুর সাথে যে হবেনা তার কি কোন নিশ্চয়তা আছে? আমরা এ ঘটনার কঠোর বিচারের দাবি জানাচ্ছি।

এতে বক্তব্য রাখেন-চট্টগ্রাম জেলা পরিষদের নবনির্বাচিত সদস্য ইঞ্জিনিয়ার ইসলাম আহমদ, শুভ সংঘের সভাপতি ব্যাংকার শারমীন মনি, উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম সম্পাদক সিরাজুল ইসলাম হৃদয়।

প্রসঙ্গত, শিশু আয়াতকে অপহরণ ও হত্যা করে লাশ কেটে ছয় টুকরা করে সাগরে ভাসিয়ে দেওয়ার ঘটনায় গত বৃহস্পতিবার পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই) আবির আলী (১৯) নামের এক তরুণকে গ্রেপ্তার করে। আবিরের পরিবার শিশু আয়াতের বাসায় ভাড়া থাকে।

গত ১৫ নভেম্বর নগরের ইপিজেড থানার বন্দরটিলা ওয়াজ মুন্সিবাড়ি এলাকার সোহেল রানার মেয়ে আয়াত বাসার পাশে একটি মক্তবে বিকেলে পড়তে যায়। পরে পরিবারের সদস্যরা জানতে পারেন শিশুটি মক্তবে যায়নি। অনেক খোঁজাখুঁজি করে না পেয়ে পরিবারের পক্ষ থেকে ইপিজেড থানায় সাধারণ ডায়েরি করা হয়।

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm