চুরির মামলায় জামিন পেয়ে ফেসবুকে পাপ্পীর হুমকি, এবার সাইবার ট্রাইবুনালে মামলা

0

চট্টগ্রামে বালি উত্তোলন সরঞ্জাম চুরির মামলার আসামী মনসুর আলম পাপ্পী ও মোহাম্মদ আলম ববির বিরুদ্ধে চট্টগ্রামের সাইবার ট্রাইবুনালে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা দায়ের হয়েছে। ২০১৮ সালের ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের ২৫/২৯/৩৫ ধারায় চট্টগ্রামের সাইবার ট্রাইবুনালে এই মামলা দায়ের করেন হাসান বিল্ডার্সের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ হাসান।

সোমবার (১৪ নভেম্বর) এই মামলা দায়ের হয়েছে বলে চট্টগ্রাম খবরকে নিশ্চিত করেন, মোহাম্মদ হাসানের আইনজীবী এডভোকেট আনোয়ার হোসেন আজাদ। তিনি জানান, পুলিশ পরিচয় চট্টগ্রামের কালুরঘাটের সাইট থেকে বালি উত্তোলন সরঞ্জাম চুরির চেষ্টাকালে তিনজন হাতে নাতে আটক হন। এই মামলার পাঁচ আসামীর মধ্যে অন্যতম মনসুর আলম পাপ্পী ও মোহাম্মদ আলম ববি। তারা হাইকোর্ট থেকে জামিন নেবার পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে আমার মক্কেল ব্যবসায়ী মোহাম্মদ হাসানকে নিয়ে বিষোদগার করেছেন, তার চরিত্রহনন করেছেন। চুরির মামলার বাদিকে ফেসবুকে হুমকি দিয়েছেন।

অ্যাডভোকেট আজাদ আরও জানান, ২০১৮ সালের ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের ২৫/২৯ /৩৫ দায়ের করা মামলায় মোহাম্মদ আলম ববি, মনসুর আলম পাপ্পী, মামুন চৌধুরী, ওয়াহিদুল আলম বাদশাসহ অজ্ঞাতনামা আরো কয়েকজনকে আসামি করা হয়েছে। আদালত মামলাটি তদন্তে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনকে (পিবিআই) দায়িত্ব দিয়েছেন।

সম্প্রতি কালুরঘাট এলাকায় পুলিশের এসআই পরিচয়ে এক ব্যক্তি ব্যবসায়ী হাসানকে ফোন করে নানা প্রকার ভয়ভীতি দেখায়। এক পর্যায়ে হাসান বিল্ডার্সের বালি উত্তোলন সরঞ্জাম চুরির চেষ্টা চালালে হাতে নাতে তিনজনকে আটক করে পুলিশ। ওই ঘটনায় চান্দগাঁও থানায় মামলা দায়ের হয়।

এর আগে বালি উত্তোলন সরঞ্জাম ভাড়া চুক্তি করে প্রায় পাঁচ কোটি টাকার ড্রেজার, বাল্কহেডসহ আনুষাঙ্গিক সরঞ্জাম আত্মসাত করার চেষ্টার অভিযোগে পাপ্পীর বিরুদ্ধে মামলা করেন পিএসপি মেরিন সার্ভিসেসের স্বত্বাধিকারী ক্যাপ্টেন কে এম হাফিজুর রহমান। সেই মামলার তদন্তে উঠে এসেছে ভাড়ায় নেওয়া ড্রেজার, বাল্কহেডে সব মূল্যবান যন্ত্রাংশ চুরি করেছে পাপ্পী। মামলাটি আদালতে বিচারাধীন রয়েছে।

আরও পড়ুন:
সেই পাপ্পীর বিরুদ্ধে এবার বালি উত্তোলন সরঞ্জাম চুরির মামলা
বাল্কহেড ফুটো করে ডুবিয়ে রেখেছিল পাপ্পী! চুরি করেছে ইঞ্জিনসহ দামী যন্ত্রাংশ

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm