বান্দরবানে ডেলিভারির সময় কপাল কেটে নবজাতকের মৃত্যুর অভিযোগ

0

বান্দরবান সদর হাসপাতালে ডেলিভারির সময় কপাল কেটে এক নবজাতকের মৃত্যুর অভিযোগ উঠেছে। তবে চিকিৎকের দাবি গর্ভে থাকাকালেই ওই নবজাতকের মৃত্যু হয়েছে।

বুধবার (২৭ এপ্রিল) রাত সাড়ে ৮টায় বান্দরবান সদর হাসপাতালে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত নবজাতক বান্দরবান পৌরসভাধীন ৮নং ওয়ার্ড হাফেজ ঘোনা বরিশাল পাড়া এলাকার পিংকি ও মাহাবু আলম দম্পতির প্রথম সন্তান ছিল।

পিংকির ভাই মো. হাসেম জানান, প্রসব ব্যথা উঠলে পিংকিকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সকাল থেকে বেশ কয়েকবার রোগীর অবস্থা ডাক্তারদের জিজ্ঞাসা করলে তারা বরাবরই বাচ্চা ও মা দুজনের অবস্থা ভালো বলে জানান। কিন্তু সন্ধ্যার পর অবস্থা খারাপ জানিয়ে সিজার করতে হবে বলে জানান তারা।

রাত ৮টার পর অপারেশন থিয়েটারের ভেতর থেকে কাপড়ে মোড়ানো মৃত বাচ্চা গছিয়ে দেন চিকিৎসকরা। পরে কাপড় খুলে দেখা যায় বাচ্চার কপালে লম্বা কাটা দাগ। এনিয়ে জিজ্ঞেস করা হলে চিকিৎসকরা কোনো সদুত্তর দিতে পারেননি। সুষ্ঠু বিচারের দাবি করেন পরিবারের সদস্যরা।

বান্দরবান সিভিল সার্জন ডা. নিহারঞ্জন নন্দি জানান, সরকারি নির্দেশনা অনুসারে নরমাল ডেলিভারি করানোর চেষ্টা করেছিলেন ডাক্তার। তবে ডেলিভারি করানোর সময় প্রসূতি দুর্বল হয়ে যাওয়ায় ফোর্সেস ডেলিভারি করাতে গিয়ে অপ্রত্যাশিতভাবে নবজাতকের কপাল কেটে গেছে।

বান্দরবান জেলা প্রশাসক ইয়াছমিন পারভিন তিবিরিজী জানান, ডাক্তার বলছে ডেলিভারির আগে নবজাতকের মৃত্যু হয়েছে, কিন্তু অবিভাবকরা বলছে ডেলিভারি করাতে গিয়ে মারা গেছে। এ নিয়ে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করে তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এমএফ

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm