বে ওয়ান ক্রুজকে চট্টগ্রাম আনছে ‘কাণ্ডারী ১০’

0

কর্ণফুলী শিপ বিল্ডার্স লিমিটেডের মালিকানাধীন প্রমোদতরী বে ওয়ান ক্রুজকে পতেঙ্গা নিয়ে আসছে বন্দরের উদ্ধারকারী টাগবোট কাণ্ডারী-১০।

শুক্রবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) সকাল ১০টার পর টাগবোট কাণ্ডারী-১০ রওয়ানা দিয়েছে। দুপুর সাড়ে ১২টা নাগাদ পর্যটকবাহী বে ওয়ান ক্রুজকে নিয়ে কাণ্ডারী-১০ পতেঙ্গা ওয়াটার বাস টার্মিনালে পৌঁছবে বলে আশা করা যাচ্ছে।

বৃহস্পতিবার রাত সোয়া পতেঙ্গা থেকে জাহাজটি ছেড়ে যায়। রাত সোয়া ১২টার দিকে ইঞ্জিনের আগুনের খবরে যাত্রীদের মাঝে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। ফলে মাঝ পথে নোঙর করেছে জাহাজটি।

বাংলাদেশ মানবাধিকার কমিশনের গভর্নর আমিনুল হক বাবু বলেন, আমরা সেন্টমার্টিন যাচ্ছিলাম। রাত ১২টার পর ইঞ্জিনরুমে আগুনের ফলে সবার মাঝে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। পরে জাহাজটি নোঙর করে রাখা হয়। আস সকাল ১০টার দিকে চট্টগ্রাম ফেরত নেওয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

জাহাজটির মালিক কর্ণফুলী শিপ বিল্ডার্স লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ইঞ্জিনিয়ার এমএ রশিদ চট্টগ্রাম খবরকে বলেন, জাহাজের দুটি ইঞ্জিনের একটির বাতাস লক হয়ে গিয়েছিল। কয়েকটি তার পোড়ায় ছড়ায় এবং মবিলের কারণে ধোঁয়া বের হয়। এতে অনেকেই আতঙ্কিত হন। আমরা সেন্টমার্টিন না নিয়ে জাহাজটি চট্টগ্রাম ফেরত আনছি। দুপুর সাড়ে ১২টা নাগাদ চট্টগ্রাম পতেঙ্গা এসে পৌঁছাবে।

জানা গেছে, জাপানের সালভিয়া মারু নামের জাহাজটির বয়স ২৯ বছর। কর্ণফুলী শিপ বিল্ডার্স লিমিটেডের এই বিলাস বহুল প্রমোদতরী আমদানি করে সংস্কার শেষে বে ওয়ান ক্রুজ নামে চট্টগ্রাম-সেন্টমার্টিন রুটে পর্যটক পরিবহন করছে।

আরও পড়ুন:
সেন্টমার্টিনগামী বে ওয়ান ক্রুজের ইঞ্জিনে আগুন, মাঝ দরিয়ায় নোঙর

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm