মিরসরাইয়ে র‌্যাবের ছিনতাই হওয়া আরও একটি অস্ত্র উদ্ধার

0

মিরসরাই উপজেলার জোরারগঞ্জ থানাধীন বারইয়ারহাট পৌর এলাকায় র‌্যাবের ওপর হামলা ও অস্ত্র ছিনতাইয়ের ঘটনায়
শেষ অস্ত্রটি উদ্ধার করা হয়েছে। শনিবার সকালে বারইয়ারহাট পৌর এলাকায় ব্যবসায়ীদের সাথে এক মতবিনিময় সভায় জোরারগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা নূর হোসেন মামুনের ২৪ ঘণ্টার আল্টিমেটামের ১৬ ঘটনার মধ্যে ছিনতাই হওয়া অস্ত্রটি উদ্ধার করা হয়।

আজ রোববার ভোরে বারইয়ারহাট পৌরসভাধীন ৫ নম্বর ওয়ার্ডের মহিউদ্দিন বাবুলের বাড়ির সামনে থেকে একটি চিরকুটসহ অস্ত্রটি উদ্ধার করে পুলিশ। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন জোরারগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা নূর হোসেন মামুন।

এদিকে অস্ত্র পাওয়ার পর বারইয়ারহাট বাজার ব্যবসায়ীদের মাঝে স্বস্তি ফিরে এসেছে। ঘটনার পর থেকে ব্যবসায়ীদের মাঝে আতংক কাজ করছিল। ব্যবসায়ীদের দাবি এ ঘটনায় কোনো নিরীহ ব্যক্তিকে যেন হয়রানি করা না হয়।

সিসি টিভির ফুটেজ দেখে ইতিমধ্যে ঘটনার সঙ্গে জড়িত ১৩ জনকে আটক করেছে র‌্যাব-৭। এছাড়া মামলা করা হয়েছে ৩টি।

এ বিষয়ে ওসি নুর হোসেন মামুন বলেন, শনিবার সকালে বারইয়ারহাট পৌর এলাকায় ব্যবসায়ীদের সঙ্গে এক মতবিনিময় সভায় অস্ত্র উদ্ধারে আমি ২৪ ঘণ্টার আল্টিমেটামের দিয়েছিলাম। আল্টিমেটামের ১৬ ঘটনার মধ্যে লুট হওয়া অস্ত্রটি পাওয়া গেছে।

তিনি আরও বলেন, শনিবার ভোর সাড়ে ৪টা টেলিটক নম্বর থেকে অজ্ঞাত এক ব্যাক্তির ফোন করেন। অজ্ঞাত ব্যাক্তির প্রাপ্ত তথ্য থেকে জানানো হয় র‌্যাবের লুট হওয়া অস্ত্রটি বারইয়ারহাট পৌরসভাধীন মহিউদ্দিন বাবুলের বাড়ির সামনে পিলারের গোড়ায় রয়েছে।

খবর পেয়ে জোরারগঞ্জ থানার পুলিশের একটি টিম রবিবার ভোরে গিয়ে একটি চিরকুটসহ অস্ত্রটি উদ্ধার করে। অস্ত্রটি পাওয়ার পর ভয়ে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে জমা দিতে পারেনি বলে চিরকুটে দাবি করা হয়।

উল্লেখ্য, বৃহস্পতিবার (২৬ মে) র‌্যাব সদস্যদের ওপর হামলার ঘটনায় ফেনীর ছাগলনাইয়া উপজেলা ও চট্টগ্রামের মিরসরাই উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে ১৩ জনকে গ্রেফতার করা হয়। ওই সময় র‌্যাব সদস্যের ছিনতাই হওয়া একটি পিস্তল উদ্ধার করা হয়।

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm