লিখিত পরীক্ষায় জালিয়াতি করে পাশ, মৌখিকে আটক ১৫ জন

0

জেলা প্রশাসনের রাজস্ব শাখার অফিস সহায়ক পদের মৌখিক পরীক্ষা দিতে এসে ধরা পড়েছেন ১৫ জন পরীক্ষার্থী। এ সময় পালিয়ে যান আরো ২১ জন।

আটক অসাধু পরীক্ষার্থীরা হলেন মো. ইবরাহীম, নাইমুল ইসলাম, মুরশেদুল আলম, মো. জুনায়েদ, বিপ্লব সুশীল, মনিদীপা চৌধুরী, মোজাম্মেল হোসেন, আলী আজগর, তম্ময় দে, নন্দন দাশ, মান্না দাশ, প্রীতম চৌধুরী, শেখর দাশ, রহিম উদ্দিন ও আসাদুজ্জামান।

বুধবার (১ জুন) সকাল ১০টা থেকে বিকেল পর্যন্ত নগরের এমএ আজিজ স্টেডিয়াম সংলগ্ন জিমনেসিয়াম হলে এ মৌখিক পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়।

জেলা প্রশাসন সূত্র জানায়, মৌখিক পরীক্ষা দিতে আসা আটক মূল পরীক্ষার্থীদের লিখিত পরীক্ষা দিয়েছেন অন্যরা। মৌখিক পরীক্ষায় অংশ নেওয়ার সময় তারা ফটোশপ করে আইডি কার্ডে প্রক্সি দেওয়া ব্যক্তির জায়গায় নিজের ছবি লাগান।

জালিয়াতির এমন ইঙ্গিত আঁচ করতে পেরে নজরদারি বাড়ান জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটরা।

পরে দেখা যায়, লিখিত পরীক্ষার সঙ্গে হাতের লেখায় অমিল রয়েছে অনেকের। এছাড়া নানান প্রশ্নের সদুত্তর দিতে পরেননি পরীক্ষার্থীরা এবং লিখিত পরীক্ষা অনুযায়ী অনেকের মেধা ও দক্ষতায় ঘাটতি পাওয়া যায়। সন্দেহভাজন পরীক্ষার্থীদের জিজ্ঞাসাবাদ করলে তারা স্বীকার করেন তাদের হয়ে লিখিত পরীক্ষায় অন্যরা অংশ নিয়েছিলেন। পরে তাদের আটক করা হয়।

ভূমি মন্ত্রণালয় এর আওতাধীন চট্টগ্রাম জেলার রাজস্ব প্রশাসনের রাজস্ব শাখাসহ ১৫ টি উপজেলা ভূমি অফিস এবং ৬ টি মহানগর সার্কেল ভূমি অফিসসমূহে অফিস সহায়কের শূন্য পদে জনবল নিয়োগের লক্ষ্যে গত ১১ মার্চ লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। এরপর ১ জুন তাদের মৌখিক পরীক্ষার জন্য আহ্বান করা হয়। মৌখিক পরীক্ষায় অংশ নেন ২৩৭ জন পরীক্ষার্থী। এতে ১৬ জন পরীক্ষার্থী অনুপস্থিত ছিলেন।

আটক অসাধু পরীক্ষার্থীদেরকে মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে ৫ জনকে অর্থদণ্ড ও ১০ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড প্রদান করা হয়।

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm