বিয়ের দাবিতে যশোর থেকে চন্দনাইশে প্রেমিকা

0

দেবীলতা রানী মন্ডল প্রকাশ অনুপমা মন্ডল (৩০)। প্রেমিককে বিয়ে করার জন্য যশোর থেকে ছুটে এসেছেন চন্দনাইশের জোয়ারা বদুরপাড়া হিন্দুপাড়ার সরকার বাড়িতে।

কিন্তু প্রেমিক রকি সরকার প্রকাশ রাজ সরকারের (৩০) দেখা না পেয়ে এবং প্রেমিকের বাড়িতে স্থান না হওয়ায় বাড়ির সামনেই অবস্থান নেয় দেবীলতা। বুধবার (১৮ মে) বিকেলে ঘটনাস্থল উপজেলার জোয়ারা বদুরপাড়ায় গিয়ে এমন চিত্র দেখা যায়।

অভিযুক্ত রকি সরকার ওই এলাকার তপন সরকারের পুত্র। তারা চট্টগ্রামের চকবাজার এলাকায় বসবাস করেন বলে জানা যায়। তবে চন্দনাইশ থানা পুলিশ বলছে দেবীলতা মন্ডল মানসিক রোগী।

সে বুধবার সন্ধ্যার আগে চন্দনাইশ সদরে এসে একটি সেলুন থেকে ব্লেইড নিয়ে নিজের শরীরে আঘাত করে আত্মহত্যার চেষ্টা চালায়। তাকে চন্দনাইশ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রাথমিক চিকিৎসার পর চমেক হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়।

এদিকে দেবীলতা মন্ডল প্রেমিক রকি সরকারের বিরুদ্ধে যশোর পুলিশ সুপার বরাবরে একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

দেবীলতা রানী মন্ডল দাবি করেন, ফেসবুক ম্যারেজ মিডিয়ার রকির সাথে তার যোগাযোগ শুরু হয়। পরে তা রূপ নেয় প্রেমের সম্পর্কে। রকি সরকার তাকে উকিল দ্বারা রেজিস্ট্রি করে বিয়ে করার আশ্বাস দেয় এবং বিভিন্ন সময় বিকাশের মাধ্যমে প্রায় লক্ষাধিক টাকার মতো ধার নেয়।

গত ৬ মে বিয়ের তারিখ ঠিক করে বিয়ের আয়োজন করা হলেও রকি সরকার আর যায়নি। এরপর রকি সরকারের মোবাইল ফোনও বন্ধ পাওয়া যায়।

স্থানীয় কমিশনার মো. শাহেদুল ইসলাম জানান, গত মঙ্গলবার রাতে ওই মহিলা তার সাথে যোগাযোগ করার পর বিষয়টি চন্দনাইশ থানায় অবহিত করেন। পরে চন্দনাইশ থানা পুলিশ ওই মহিলাকে থানায় নিয়ে যায় এবং যে এলাকায় ঘটনা ঘটেছে সে এলাকায় গিয়ে আইনের আশ্রয় নেয়ার পরামর্শ দেয়া হয়।

চন্দনাইশ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. আনোয়ার হোসেন জানান, বিষয়টি চন্দনাইশ থানা এলাকার বাইরের ঘটনা। সেহেতু ভিকটিম ওই মহিলাকে যে এলাকায় ঘটনা ঘটেছে সে এলাকায় গিয়ে আইনের আশ্রয় নিতে বলা হয়েছে। কিন্তু বুধবার সন্ধ্যায় সে আত্মহত্যার চেষ্ঠা করে।

পরে পুলিশ তাকে উদ্ধার করে চন্দনাইশ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেয়। সেখান থেকে তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মানসিক ওয়ার্ডে ভর্তি করার পরামর্শ দেয়া হয় এবং তাকে চমেক হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়।

তিনি আরো জানান, দেবীলতার কাছ থেকে তার পরিবারের মোবাইল নাম্বার সংগ্রহ করে কথা বলে জানা যায় দেবীলতা একজন মানসিক রোগী। এর আগে সে যশোর হাসপাতালে মানসিক ওয়ার্ডে ভর্তি ছিল।

এদিকে রকি সরকারের পিতা তপন সরকার বাদি হয়ে এ ব্যাপারে দেবীলতা মন্ডলের বিরুদ্ধে চন্দনাইশ থানায় একটি পাল্টা অভিযোগ দায়ের করেছেন বলে জানা গেছে।

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm