সাংবাদিককে পিটিয়ে জখম ও দোতলার ছাদ থেকে নিক্ষেপের ঘটনায় আটক ২

0

চট্টগ্রামের চন্দনাইশে অবৈধভাবে পাহাড় কাটা নিয়ে সংবাদ প্রকাশের জের ধরে সাংবাদিক আইয়ুব মিয়াজিকে পিটিয়ে জখম ও দোতলার ছাদ থেকে ছুঁড়ে ফেলে গুরতর আহত করার ঘটনায় চন্দনাইশ থানায় একটি মামলা দায়ের হলে তার ছায়া তদন্তে নেমে অভিযুক্ত প্রধান দুই আসামী মো: আলাউদ্দিন (৩৫) ও মো: ফারুককে (২৬) আটক করেছে র‌্যাব। সোমবার (১০ এপ্রিল) র‍্যাব সদর দপ্তরের গোয়েন্দা শাখা ও র‌্যাব-৭ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে রাজধানীর কমলাপুর সর্দারপাড়া কলোনীর একটি ব্যাচেলর মেসে অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করে।

আটককৃতরা হলো— চট্টগ্রামের চন্দনাইশ থানার দোহাজারীর আব্দুল মোনাফের ছেলে মো: আলাউদ্দিন ও একই থানার পূর্ব দোহাজারীর আবদুল ছবুরের ছেলে মো: ফারুক।

বিষয়টি চট্টগ্রাম খবরকে নিশ্চিত করেন র‌্যাব-৭ এর সিনিয়র সহকারী পরিচালক মো. নুরুল আবছার। তিনি বলেন, চট্টগ্রামের চন্দনাইশে অবৈধভাবে পাহাড়কাটার প্রকাশিত নিউজের জের ধরে প্রতিশোধপরায়ন হয়ে সাংবাদিক আইয়ুব মিয়াজির ব্যক্তিগত অফিসে আলাউদ্দিন, ফারুকসহ ১০ থেকে ১২ জন ব্যক্তি প্রবেশ করে আইয়ুব মিয়াজীকে লাঠিসোঠা, ধারালো দা, হকস্টিক দিয়ে মারধর ও একপর্যায়ে তাকে দোতলার ছাদ থেকে থেকে ফেলে দিয়ে গুরুতর আহত করে। সাংবাদিক আইয়ুব মিয়াজিকে দোতলা থেকে ফেলে দেওয়ার একটি সিসিটিভি ফুটেজ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে ঘটনাটি সারাদেশে ব্যাপক আলোচিত হলে মামলাটির ছায়া তদন্তে নেমে রাজধানীর একটি ব্যাচেলর মেস থেকে অভিযুক্ত মো. আলাউদ্দিন ও মো. ফারুককে আটক করি।

তিনি আরও বলেন, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে আটককৃত আসামিরা হামলার ঘটনায় প্রত্যক্ষভাবে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছে। ঘটনার পর গ্রেপ্তার এড়াতে চট্টগ্রাম থেকে পালিয়ে রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে আত্মগোপন করার কথাও স্বীকার করে তারা।

আটককৃতদের বিরুদ্ধে পরবর্তী আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য সংশ্লিষ্ট থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে বলেও জানান র‌্যাবের এ কর্মকর্তা।

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।