রাসূলুল্লাহকে (সা.) নিয়ে কটুক্তি : প্রতিবাদে উত্তাল চবি

0

ভারতের ক্ষমতাসীন দল বিজেপির দু’জন নেতা মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) সম্পর্কে বিতর্কিত মন্তব্য করার প্রতিবাদে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করেছে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ শিক্ষার্থীরা।

বৃহস্পতিবার (৯ জুন) বেলা এগারোটায় বিশ্ববিদ্যালয়ের শহিদ মিনার প্রাঙ্গণে আয়োজিত হয় এ মানববন্ধন।

সম্প্রতি মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) কে নিয়ে আপত্তিকর মন্তব্য করেন বিজেপির মুখপাত্র নূপুর শর্মা। আর ওই একই ইস্যুতে দলটির দিল্লি ইউনিটের প্রধান নাভিন জিন্দাল টুইট করার পর বিষয়টি নিয়ে ব্যাপক আলোড়ন সৃষ্টি হয়।

মানববন্ধন কর্মসূচিতে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ শিক্ষার্থীদের রেকর্ড সংখ্যক উপস্থিতি লক্ষ্য করা গেছে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের ২০১৬-১৭ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী আব্দুল্লাহ আল মুছাদ্দিকের সঞ্চালনায় মানববন্ধনে একাউন্টটিং বিভাগের ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের ছাত্র ফারুক হাসান, ইসলামের ইতিহাস বিভাগের ১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষের ছাত্র জাহিদুল ইসলাম, পরিসংখ্যান বিভাগের ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের ছাত্র এসএম তাইমুন ইসলাম ও ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের ছাত্র শাখাওয়াত হোসেন শিপনসহ বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষার্থীরা বক্তব্য রাখেন।

 

রাসূলুল্লাহকে (সা.) নিয়ে কটুক্তি : প্রতিবাদে উত্তাল চবি 1

তারা বলেন, সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ মানব হযরত মোহাম্মদ (স:)। যার চরিত্রের সার্টিফিকেট প্রদান করেছেন স্বয়ং আল্লাহ তায়ালা। যদি রাসূল (সা:) নিয়ে কোনো কটুক্তি করা হয় তাহলে দুনিয়ার মুসলমানরা ঘরে বসে থাকবে না।

তারা আরো বলেন, কটুক্তিকারী দুই নেতা সরাসরি বিজেপি সরকারের প্রতিনিধিত্ব করে। আমরা জানি, বিজেপি সরকার ইসলাম বিদ্বেষকে পুঁজি করে তার ক্ষমতা চালিয়ে নিতে চায়। আজকের এই মানববন্ধন থেকে আমরা বলে দিতে চাই কটুক্তিকারী দুই নেতাকে সর্বোচ্ছ শাস্তির আওতায় আনতে হবে।

মানববন্ধনে রাষ্ট্রিয়ভাবে প্রতিবাদ জানানোর জন্য বাংলাদেশ সরকারের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নিকট আহবান জানান বক্তারা।

উল্লেখ্য, মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) সম্পর্কে বিতর্কিত মন্তব্য করার প্রতিবাদে গতকাল বুধবার মানববন্ধন ও বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করেছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) সাধারণ শিক্ষার্থীরা। বুধবার দুপুর ১২ টার দিকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) রাজু ভাস্কর্যে এ কর্মসূচি পালিত হয়।

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm