১৫ বছর পর জোড়া খুনের মামলায় ৪ জনের যাবজ্জীবন

0

চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে ২০০৮ সালে হারুন ও জাহেদুল আলম নামে দুই যুবককে পিটিয়ে হত্যার মামলায় চার জনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত।

মঙ্গলবার (৩১ মে) চট্টগ্রামের পঞ্চম অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ অশোক কুমার দত্ত আসামিদের উপস্থিতিতে এ রায় ঘোষণা করেন। এসময় তাদেরকে ২০ হাজার টাকা করে জরিমানা অনাদায়ে আরও চার মাস করে কারাদণ্ড দেয়া হয়।

দণ্ডিতরা হলো- বাদশা আলম, ফারুক মিয়া, মো. সেকান্দর ও আবুল কালাম আজাদ। তাদের বাড়ি সীতাকুণ্ড উপজেলার বার আউলিয়া এলাকায়। খুন হওয়া দুইজন বার আউলিয়া এলাকার বাসিন্দা ছিলেন।

রাষ্ট্রপক্ষের কৌঁসুলি অতিরিক্ত মহানগর পিপি লোকমান হোসেন চৌধুরী জানান, পূর্বশত্রুতা এবং আধিপত্য বিস্তারের জেরে ২০০৮ সালের ২০ এপ্রিল রাত তিনটার দিকে সীতাকুণ্ডের বার আউলিয়া এলাকায় ইক্যুইটি রেডিমিক্স কারখানার ভেতরে নিয়ে হারুন ও জাহিদুলকে পিটিয়ে খুন করা হয়। এ ঘটনায় হারুনের বাবা মোহাম্মদ আলী বাদি হয়ে সীতাকুণ্ড থানায় মামলা দায়ের করেন।

পুলিশ তদন্ত শেষে ওই বছরের ১৮ সেপ্টেম্বর চার জনকে আসামি করে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করে। ২০১০ সালের ১৯ সেপ্টেম্বর আসামিদের বিরুদ্ধে দণ্ডবিধির ৩০২ ধারায় অভিযোগ গঠন করে বিচার শুরুর আদেশ দেন আদালত।

দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালে এবং পঞ্চম অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতে মোট ১৭ জনের সাক্ষ্যগ্রহণের পর আদালত এ রায় দেন।

রায় ঘোষণার পর আসামিদের জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে বলে জানান লোকমান হোসেন চৌধুরী।

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm